ভিপিএন যখন প্রয়োজন...

ভিপিএন যখন প্রয়োজন...

ভার্চুয়াল প্রাইভেট নেটওয়ার্ক- এর সংক্ষিপ্তরূপ হচ্ছে ভিপিএন। এটি ইন্টারনেটের দুটি নেটওয়ার্কের মাঝে নিরাপদ সংযোগ তৈরি করে থাকে। তবে বেশিরভাগ মানুষ অঞ্চলভিত্তিক ব্লক করা সাইটগুলোতে প্রবেশ করতে বেশি ব্যবহার করে থাকে। আবার তথ্যের গোপনীয়তা রক্ষায়ও এর ব্যবহার রয়েছে। অনেকেই স্পর্শকাতর কন্টেন্ট ব্রাউজ করার সময় নিজের পরিচয় গোপন রাখতে ভিপিএনের আশ্রয় নেয়।

আজকাল ভিপিএনের ব্যবহার অনেক জনপ্রিয়। কিন্তু যে কারণে ভিপিএন ব্যবহার করে সেই কারণে ভিপিএন এর জন্ম হয়নি। ভিপিএন তৈরী করা হয়েছিল ব্যবসা ও বাণিজ্যিক প্রাইভেট নেটওয়ার্কগুলোকে নিরাপদে সংযুক্ত করার জন্য।

 

যেভাবে কাজ করে

আপনি যখন আপনার ডিভাইসটিকে ভিপিএনে কানেক্ট করেন তখন এটা অন্য কোন একটা কম্পিউটারে (সার্ভারে) নিজেকে সংযুক্ত করে এবং ইন্টারনেটের সাথে আপনার যোগাযোগের জন্য একটি গোপন রাস্তা বা সুড়ঙ্গ তৈরি করে। আপনার ইন্টারনেট সার্ভিস প্রোভাইডার (আইএসপি) এই সুড়ঙ্গের উপস্থিতি বুঝতে পারলেও এর মধ্যে ঢুকতে পারবেনা। ফলে আপনি কোন সাইট ব্রাউজ করছেন কিংবা কী ডেটা পাস করছেন তা আইএসপি জানতে পারবে না। তখন আপনার দেশে বা আইএসপিতে যদি কোন সাইট ব্লক করা থাকে সেই সাইটটিও আপনি ভিপিএন ব্যবহার করে ব্রাউজ করতে পারেন। আর এই সব ডেটা ভিপিএন ব্যবহারের সময় এনক্রিপ্টেড হয়ে যায়।

 

ভিপিএন নিয়ে সতর্কতা

অনলাইনে প্রাইভেসি রক্ষার পাশাপাশি সুরক্ষিত থাকতে অনেকেই ভিপিএন সফটওয়্যার ব্যবহার করেন। কিন্তু অনলাইনে সুরক্ষিত রাখার পরিবর্তে আপনার সব তথ্য পাচার করে দিচ্ছে একাধিক ভিপিএন সফটওয়্যার। গুগল প্লে স্টোরের ১৫০টি জনপ্রিয় ভিপিএনের ২৫ শতাংশের বেশি অ্যাপের বিরুদ্ধে তথ্য বিক্রি করার অভিযোগ উঠেছে। এর মধ্যে ৮৫ শতাংশ ব্যবহারকারী ব্যক্তিগত সুরক্ষায় বড় সমস্যার সম্মুখীন হতে পারেন।

 

জনপ্রিয় পাঁচ ভিপিএন

জনপ্রিয় ভিপিএন সম্পর্কে এখানে তথ্য দেয়া হলো।

 

১. টানেল বিয়ার ভিপিএন: সবচেয়ে ভালো ভিপিএনের মধ্যে এটি একটি। টানেল বিয়ারের ডিজাইন বেশ হালকা ও সিম্পল। ব্যবহারও সহজ। নিরাপত্তাও ভালো দেয়। এটি বিনামূল্যে ডাউনলোড করে ব্যবহার করা যায়। তবে সেক্ষেত্রে কিছু লিমিটেশন রয়েছে।

 

২. হটস্পট শিল্ড ভিপিএন: বিনামূল্যে ব্যবহারের জন্য সেরা ভিপিএনগুলোর মধ্যে এটি একটি। নিরাপত্তার দিক দিয়ে অনেক স্ট্রং ও খুব সহজে এটি ব্যবহার করা যায়। বর্তমানে এই ভিপিএন সার্ভিসের ৫০০ মিলিয়ন ব্যবহারকারী রয়েছে।

৩. জেনমেট ভিপিএন: সেরা ভিপিএনের মধ্যে অন্যতম একটি হলো যেনমেট। এটি মূলত লাইট ওয়েট ব্রাউজার। এর কোনো সাইন আপ নেই এবং শুধুমাত্র ইমেইল ব্যবহার করে সুরক্ষিত এবং ব্যক্তিগত ব্রাউজিং এর সেবা পাবেন।

৪. এভিরা ফ্যান্টম ভিপিএন: সবচেয়ে ভালো ভিপিএনের মধ্যে এটি একটি। বিনামূল্যে দেওয়া এই ভিপিএন আপনাকে প্রতি মাসে ৫০০ মেগাবাইট ব্রাউজিং ডেটা দেয়। যেটা পিসি ও স্মার্টফোন দুটোতেই ব্যবহার যোগ্য।

৫. রেডমিন ভিপিএন: সবচেয়ে ভালো সেরা ৫ ভিপিএনের তালিকা করলে রাডমিন ভিপিএনকে সে তালিকায় রাখতেই হবে। এটি আইটি পেশাদারদের জন্য উপযুক্ত একটি ভিপিএন। এর উচ্চগতি ১০০ এমবি/সেকেন্ড পর্যন্ত হয়ে থাকে। এটি আনলিমিটেড সার্ভিস দিয়ে থাকে। যার কারণে ব্যবসায়ীদের ব্যবহারে খুবই সুবিধাজনক। রেডমিন ভিপিএন ১০০% ফ্রি সেবা দেয়। এর প্রিমিয়াম সাবক্রিপশন নেই আর এর কোন বৈশিষ্ট্য পে অল এর জন্য লক করাও নেই।

#তমহ/বিবি/২৮-০৩-২০২১

ক্যাটেগরী: প্রযুক্তি

ট্যাগ: প্রযুক্তি

প্রযুক্তি ডেস্ক, বিবি রবি, মার্চ ২৮, ২০২১ ১১:২৬ অপরাহ্ন

Comments (Total 0)